মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:৩২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
শ্যামনগরে ফ্রি স্বাস্থ্য ক্যাম্প অনুষ্ঠিত সুন্দরবনের গহীন থেকে ১৫ টি নৌকা ও ১০ জেলেকে আটক করেছে বিলাইছড়িতে যুব সমাজের উদ্যোগে ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল ৩ ফেব্রুয়ারি কপিলমুনিতে ‘বন্ধু- ৮৩’ র সংগঠনের যুগ্ন আহবায়কের মাতার ৪র্থ মৃত্যু বার্ষিকী পালিত মহালছড়িতে সরস্বতী পূজা পালন চট্টগ্রাম কক্সবাজার মহাসড়কের কর্ণফুলীতে রাস্তার পাশে যুবকের লাশ, পেটে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন পাইকগাছায় অজ্ঞান পার্টির প্রধান ও হত্যা মামলার আসামী রেজাউল গ্রেপ্তার কপিলমুনিতে আর্তমানবতার সেবা নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে ‘বন্ধু- ৮৩’ব্যাচ সংগঠন শ্যামনগরে সুন্দরবন কোয়ালিশনের অবহিতকরণ সভা কপিলমুনি মেহেরুন্নেছা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের সাফল্য
জরুরী নোটিশঃ
Wellcome to our website...

পাইকগাছায় অজ্ঞান পার্টির প্রধান ও হত্যা মামলার আসামী রেজাউল গ্রেপ্তার

সেলিম মোড়ল / ৪৩ টাইম ভিউ
আপডেটঃ শুক্রবার, ২০ জানুয়ারী, ২০২৩, ৩:৪৯ অপরাহ্ন

পাইকগাছা থানা পুলিশ বিভাগীয় অজ্ঞান পার্টির মূল হোতা ও হত্যা-ডাকাতি সহ একাধিক মামলার আসামী রেজাউল গাজী (৪২) কে গ্রেপ্তার করে জেল হাজতে পাঠিয়েছে। ১৩ জানুঃ গভীর রাতে ওসি জিয়াউর রহমানের নেতৃত্বে এস আই আনজীর হোসেন,তাকবীর হোসাইন, মোস্তাফিজ সহ সঙ্গীয় ফোর্স গড়ইখালীর বগুড়ারচকের শাহদত গাজীর বাড়ী থেকে তাকে গ্রেপ্তার করেন। এ সময় তার কাছ থেকে লোহার রড ও ১৮০ পিস চেতনা নাশক ভারতীয় ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। রেজাউল সাতক্ষীরা জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার কৃষ্ণনগরের বরকাতুল্লাহ গাজীর ছেলে। পুলিশ মোবাইল সিডিআর যাচাই করে রেজাউল সহ ইতোপুর্বে ডুমুরিয়ার দু’বাড়ীতে অজ্ঞান করে সর্বস্ব চুরির ঘটনায় জড়িত এ চক্রের ৬ সদস্যকে গ্রেপ্তার করে জেল-হাজতে প্রেরন করেছেন। জানাগেছে, গত ৩ জানুয়ারী রাতে পাইকগাছার গদাইপুরের পুরাইকাটি গ্রামের প্রভাত বিশ্বাস ( ভোলা)’র বাড়ীর সদস্যদের খাবারের সাথে চেতনা নাশক ঔষধ মিশিয়ে সকলকে অজ্ঞান করে স্বর্ন, টাকা সহ ১ লাখ ৮০ হাজার টাকার মালামাল চুরি করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় প্রভাত বাদী হয়ে থানায় মামলা করেন,যার নং- ১৪, তাং ১০-১-২৩। পুলিশের তদন্তে জানাগেছে, পাইকগাছায় গ্রেপ্তারকৃত দুর্ধর্ষ রেজাউল ও ডুমুরিয়ায় থানায় গ্রেপ্তারকৃতরা পুরাইকাটির প্রভাত বিশ্বাসের বাড়ীতে সংগঠিত ঘটনার সন্ধিগ্ধ আসামী। এ চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে সাতক্ষীরা, খুলনা, যশোর সহ বিভিন্ন অঞ্চলে পরিকল্পিত ভাবে চুরি-সহ নানাবিধ অপরাধ করে আসছিল। এ চক্রটি ভারতীয় ২ মিঃ গ্রাম চেতনা নাশক ঔষধ বা ট্যাবলেট রান্না ঘরের পাত্রে রাখা হলুদের সাথে মিশিয়ে দিয়ে ওথ পেতে থাকে। রাতের খাবার খেয়ে ঐ পরিবারের সকলে অজ্ঞান হয়ে পড়লে এ চক্রটি বাড়ীর স্বর্ন, টাকা সহ সহায় সম্পদ চুরি করে পালিয়ে যায় । এ বিষয়ে ওসি মোঃ জিয়াউর রহমান বলেন, পাইকগাছাসহ বিভিন্ন স্থানের বাড়িতে অজ্ঞান করে সর্বস্ব চুরির ঘটনায় জড়িত মূলহোতা রেজাউল গংদের জড়িত থাকার পর্যাপ্ত প্রমান রয়েছে। তিনি আরোও জানান, রেজাউল গাজীর বিরুদ্ধে সাতক্ষীরা কালীগঞ্জ উপজেলার ইউপি চেয়ারম্যান মোশাররফ হত্যা, চুরি-ডাকাতিসহ বিভিন্ন মামলা রয়েছে। এছাড়া ডুমুরিয়া থানায় গ্রেপ্তরকৃতদের পাইকগাছা থানায় প্রভাত বিশ্বাসের দায়ের করা মামলায় শোন এ্যারেস্ট দেখানো হয়েছে।


এই বিভাগের আরো খবর